গাজীপুরে শ্রমিক নেতা-পুলিশের মতবিনিময়

পোশাক কারখানায় সুশৃঙ্খল কর্মপরিবেশ বজায় রাখতে গতকাল গাজীপুর জেলার বিভিন্ন অঞ্চলের শ্রমিক নেতাদের সঙ্গে আইনশৃঙ্খলা বাহিনীর কর্মকর্তাদের মতবিনিময় সভা হয়েছে। সভায় শ্রমিক নেতারা তাদের বিভিন্ন সমস্যা ছাড়াও মজুরি কমিশন ও ট্রেড ইউনিয়ন বাস্তবায়নের দাবি জানান।   শিল্পাঞ্চল পুলিশ-২ এর পরিচালক গাজীপুরের নলজানির কার্যালয়ে এ সভা অনুষ্ঠিত হয়। শিল্পাঞ্চল পুলিশ-২ এর পরিচালক মো. শোয়েব আহাম্মদের সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে র‌্যাব-১ উপ-পরিচালক মোহাম্মদ মহিউল ইসলাম, অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মোহাম্মদ রাসেল শেখ, গাজীপুর ট্রাফিক পুলিশের অতিরিক্ত পুলিশ সুপার সাখাওয়াত হোসেন, কল-কারখানা ও প্রতিষ্ঠান পরিদর্শন অধিদফতরের সহ-শ্রম পরিচালক মহব্বত হোসাইন, শ্রম পরিদর্শক (সাধারণ) মো. তারিকুল ইসলাম, জয়দেবপুর থানার ওসি খন্দকার রেজাউল হাসান রেজা, জেলা গোয়েন্দা পুলিশের ইন্সপেক্টর মীর রকিবুল হক প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন। মতবিনিময় সভায় জাতীয় শ্রমিক ফেডারেশন, গাজীপুর শাখার সাধারণ সম্পাদক এম এ কাশেম জানান, বেশির ভাগ কারখানায় শ্রমিকদের ন্যায্য বেতন-ভাতা দেওয়া হয় না। বেতন-ভাতার একাধিক শিট তৈরি করা হয়। বায়ারদের দেখাতে শ্রমিকদের অধিক বেতনের শিট তৈরি করা হয়। 


বাস্তবে শ্রমিকদের জন্য কম বেতন-ভাতার শিট অনুসরণ করা হয়। বাংলাদেশ পোশাক শ্রমিক ট্রেড ইউনিয়ন ফেডারেশনের গাজীপুর জেলার সাধারণ সম্পাদক আকাশ আহমেদ বলেন, শ্রমিকরা অধিক সময় কাজ করছে, বিনিময়ে তারা সঠিক বেতন-ভাতা পায় না। শ্রমিকদের কোনো অধিকার নেই। নারী শ্রমিকদের অকথ্য ভাষায় গালিগালাজ করা হয়। সংযুক্ত গার্মেন্ট শ্রমিক ফেডারেশনের গাজীপুর কমিটির সভাপতি ফেরদৌসী বেগম বলেন, দ্রব্যমূল্য এবং  বাড়ি ভাড়া বেড়ে যাওয়ার বিষয়ে সরকারের নজর দেওয়া উচিত। অতিরিক্ত পুলিশ সুপার মো. বেলায়েত হোসেন জানান, অধিকাংশ কারখানায় শ্রমিক অসন্তোষের কারণ দেখা গেছে সঠিক সময়ে শ্রমিকদের বেতন-ভাতা না দেওয়া।   শ্রম অধিদফতরের সহকারী পরিচালক (শ্রম বিভাগ) মহব্বত হোসাইন বলেন, সবাইকে ঐকান্তিকভাবে শ্রমিক অসন্তোষ রোধে এগিয়ে আসতে হবে। অতিরিক্ত পুলিশ সুপার রাসেল শেখ কারখানায় সুশৃঙ্খল কর্মপরিবেশ বজায় রাখতে অনুরোধ জানান।

মন্তব্য