আজ পয়লা আষাঢ়। বর্ষার প্রথম দিন।

আজ বর্ষার প্রথম দিন। আবহাওয়ার হিসেবে অবশ্য জুনের দুই তারিখ থেকে শুরু হয় বর্ষা। তবে বাস্তবের বর্ষার শুরু নির্ভর করে, কবে মৌসুমি বায়ু দেশে প্রবেশ করবে তার ওপরে।এ বছর মৌসুমি বায়ু একটু পরেই দেশে এসে পৌঁছেছে। গত ১০ জুন বিপুল জলীয় বাষ্পবাহী মৌসুমি বায়ু টেকনাফ দিয়ে দেশে প্রবেশ করেছে। গতকাল তা দেশের প্রায় ৭০ শতাংশ এলাকায় ছড়িয়ে পড়েছে। মৌসুমি বায়ুর এই বিস্তারই দেশের বিভিন্ন স্থানে বৃষ্টি নামিয়েছে। তবে মৌসুমি বায়ুই যে সব বৃষ্টি এনেছে তা নয়। এবার বর্ষা আসার আগেই মে মাসে দেশে স্বাভাবিকের চেয়ে ২৬ মিলিমিটার বেশি বৃষ্টি হয়েছে। বিশেষ করে ঘূর্ণিঝড় রোয়ানুর কারণে বিভিন্ন এলাকায় অত্যধিক বৃষ্টি হয়েছে, সিলেট অঞ্চলে এর কারণে বন্যাও হয়েছে। তবে আবহাওয়াবিদরা বলছেন, এ বছরের বর্ষাটা স্বাভাবিকই হবে। জুন মাসে যে স্বাভাবিক বৃষ্টি হয় এবার তার চেয়ে একটু বেশি বৃষ্টিপাত হওয়ার ইঙ্গিত ইতিমধ্যেই পাওয়া গেছে। মাসের মোট বৃষ্টিপাতের ৬০ থেকে ৬৫ শতাংশ প্রথম ১৪ দিনেই হয়ে গেছে। মাসের আরও যে কটা দিন রয়ে গেছে তাতে বৃষ্টিপাত বাড়বে ছাড়া কমবে না। আবহাওয়া অধিদপ্তরের আবহাওয়াবিদ মো. রাশেদুজ্জামান বলেন, ‘আমরা আবহাওয়ার দীর্ঘমেয়াদি যে পূর্বাভাস দেখতে পাচ্ছি তাতে এ মাসে স্বাভাবিক বৃষ্টিপাতই হবে। ফলে মাসের বেশির ভাগ সময় জুড়ে আমরা বৃষ্টি পাব আশা করছি।’ 

মন্তব্যসমূহ